মেনু নির্বাচন করুন

উপকৃলীয় জীবন যাত্রা

বঙ্গোপসাগরের উত্তাল ঢেউয়ের তরঙ্গমালা ক্রীড়া নৈপূণ্যে জেগে উঠেছে পলিমাটি বিধৌত এই সাগর তীর। বার বার সাগরের ভাঙ্গাগড়া, সামুদ্রিক ঘূর্ণি আর প্রলয়ংকারী জলোচ্ছ্বাসের তান্ডবলীলায় শিকার সংগ্রামী মানুষরাই আজ কোম্পানীগঞ্জের অধিবাসী । শস্যশ্যামল, পাখি ডাকা তাল তমাল, নারিকেল ও সুপারি কুঞ্জ আর সোনালী ধানের মাঠ সমৃদ্ধ কোম্পানীগঞ্জ। এই সমতট অঞ্চলটি বৈদিক যুগেই ( ১৪০০ ও ১৫০০ খৃষ্টাব্দ পূর্বে ) জনবসতির উপযোগী হয়েছিল, তার প্রমাণ মেলে মহাভারতের ঘটনা পঞ্জিতে।

ঙ্গোপসাগরের উত্তাল ঢেউয়ের তরঙ্গমালা ক্রীড়া নৈপূণ্যে জেগে উঠেছে পলিমাটি বিধৌত এই সাগর তীর। বার বার সাগরের ভাঙ্গাগড়া, সামুদ্রিক ঘূর্ণি আর প্রলয়ংকারী জলোচ্ছ্বাসের তান্ডবলীলায় শিকার সংগ্রামী মানুষরাই আজ কোম্পানীগঞ্জের অধিবাসী । শস্যশ্যামল, পাখি ডাকা তাল তমাল, নারিকেল ও সুপারি কুঞ্জ আর সোনালী ধানের মাঠ সমৃদ্ধ কোম্পানীগঞ্জ। এই সমতট অঞ্চলটি বৈদিক যুগেই ( ১৪০০ ও ১৫০০ খৃষ্টাব্দ পূর্বে ) জনবসতির উপযোগী হয়েছিল, তার প্রমাণ মেলে মহাভারতের ঘটনা পঞ্জিতে।

ঙ্গোপসাগরের উত্তাল ঢেউয়ের তরঙ্গমালা ক্রীড়া নৈপূণ্যে জেগে উঠেছে পলিমাটি বিধৌত এই সাগর তীর। বার বার সাগরের ভাঙ্গাগড়া, সামুদ্রিক ঘূর্ণি আর প্রলয়ংকারী জলোচ্ছ্বাসের তান্ডবলীলায় শিকার সংগ্রামী মানুষরাই আজ কোম্পানীগঞ্জের অধিবাসী । শস্যশ্যামল, পাখি ডাকা তাল তমাল, নারিকেল ও সুপারি কুঞ্জ আর সোনালী ধানের মাঠ সমৃদ্ধ কোম্পানীগঞ্জ। এই সমতট অঞ্চলটি বৈদিক যুগেই ( ১৪০০ ও ১৫০০ খৃষ্টাব্দ পূর্বে ) জনবসতির উপযোগী হয়েছিল, তার প্রমাণ মেলে মহাভারতের ঘটনা পঞ্জিতে।

ঙ্গোপসাগরের উত্তাল ঢেউয়ের তরঙ্গমালা ক্রীড়া নৈপূণ্যে জেগে উঠেছে পলিমাটি বিধৌত এই সাগর তীর। বার বার সাগরের ভাঙ্গাগড়া, সামুদ্রিক ঘূর্ণি আর প্রলয়ংকারী জলোচ্ছ্বাসের তান্ডবলীলায় শিকার সংগ্রামী মানুষরাই আজ কোম্পানীগঞ্জের অধিবাসী । শস্যশ্যামল, পাখি ডাকা তাল তমাল, নারিকেল ও সুপারি কুঞ্জ আর সোনালী ধানের মাঠ সমৃদ্ধ কোম্পানীগঞ্জ। এই সমতট অঞ্চলটি বৈদিক যুগেই ( ১৪০০ ও ১৫০০ খৃষ্টাব্দ পূর্বে ) জনবসতির উপযোগী হয়েছিল, তার প্রমাণ মেলে মহাভারতের ঘটনা পঞ্জিতে।

ঙ্গোপসাগরের উত্তাল ঢেউয়ের তরঙ্গমালা ক্রীড়া নৈপূণ্যে জেগে উঠেছে পলিমাটি বিধৌত এই সাগর তীর। বার বার সাগরের ভাঙ্গাগড়া, সামুদ্রিক ঘূর্ণি আর প্রলয়ংকারী জলোচ্ছ্বাসের তান্ডবলীলায় শিকার সংগ্রামী মানুষরাই আজ কোম্পানীগঞ্জের অধিবাসী । শস্যশ্যামল, পাখি ডাকা তাল তমাল, নারিকেল ও সুপারি কুঞ্জ আর সোনালী ধানের মাঠ সমৃদ্ধ কোম্পানীগঞ্জ। এই সমতট অঞ্চলটি বৈদিক যুগেই ( ১৪০০ ও ১৫০০ খৃষ্টাব্দ পূর্বে ) জনবসতির উপযোগী হয়েছিল, তার প্রমাণ মেলে মহাভারতের ঘটনা পঞ্জিতে।

ঙ্গোপসাগরের উত্তাল ঢেউয়ের তরঙ্গমালা ক্রীড়া নৈপূণ্যে জেগে উঠেছে পলিমাটি বিধৌত এই সাগর তীর। বার বার সাগরের ভাঙ্গাগড়া, সামুদ্রিক ঘূর্ণি আর প্রলয়ংকারী জলোচ্ছ্বাসের তান্ডবলীলায় শিকার সংগ্রামী মানুষরাই আজ কোম্পানীগঞ্জের অধিবাসী । শস্যশ্যামল, পাখি ডাকা তাল তমাল, নারিকেল ও সুপারি কুঞ্জ আর সোনালী ধানের মাঠ সমৃদ্ধ কোম্পানীগঞ্জ। এই সমতট অঞ্চলটি বৈদিক যুগেই ( ১৪০০ ও ১৫০০ খৃষ্টাব্দ পূর্বে ) জনবসতির উপযোগী হয়েছিল, তার প্রমাণ মেলে মহাভারতের ঘটনা পঞ্জিতে।


Share with :

Facebook Twitter